Thursday , July 7 2022
Home / মহিলার স্বাস্থ্য / স্তনের বোটা ভেতরে ঢুকে যাওয়ার কারণ ও সামাধান

স্তনের বোটা ভেতরে ঢুকে যাওয়ার কারণ ও সামাধান

স্বাভাবিকভাগে একজন পুরুষের থেকে একজন নারী দেহে সমস্যা একটু বেশি।আর এটি হওয়াটাই স্বভাবিক।কারণ একজন নারীর দেহে বহু রকমের কার্যাদি সম্পন্ন হয়।যেকানে পুরুষের অতি নগন্ন।বিশেষ করে বয়োঃসন্ধিকালে ও সন্তান জন্ম দেওয়ার প্রক্রিয়া বহু ধরণের সমস্যার সম্মখীন হতে হয়। স্তনের বোটা

স্তনের বোটা
স্তনের বোটা ভেতরে ঢুকে যাওয়ার কারণ ও সামাধান

স্তনের বোটা ভেতরে ঢুকে যাওয়ার কারণ ও সামাধান

লক্ষ্য করলে দেখা যায় অনেক মেয়েদের স্তনগত সমস্যার ভিতর একটি হলো স্তনের বোট ভিতরের দিকে ঢুকে যায়।এটি একটু গুরুতর সমস্যা।মেয়েদের বয়োঃসন্ধিকালে বিশেষ বিশেষ পরিবর্তন দেখা দেয়।শরীরের বিভিন্ন ইন্দ্রিয়গুলো পরিস্ফুটিত হয় এই সময়ে।বিশেষ পরিবর্তনের ভিতর তাদের স্তন ও এই সময়ে বড় হয়ে best breasts রূপ ধারণ করে।।তবে অনেকের ক্ষেত্রে এই সময়ে স্তনের বৃদ্ধি অতিরিক্ত হয় যেটা একটা রোগ বটে। তাছাড়া স্বভাবিক ভাবে বাড়লে ও সমস্যা দেখা দেয় স্তনের নিপল বা বোটাতে।স্তনের বোট বাইরের দিকে স্বভাবিকভাবে না এসে ভিতরের দিকে ঢুকে যায়।তবে এই সমস্যা দুটি স্তনের ক্ষেত্রে খুব কমই হয়।বিশেষ করে একটি স্তনের ক্ষেত্রে এমনটি বেশি হয়। তবে ভয়ের তেম কিছু নেই, কারণ সমস্যাটি বেশি ভয়াবহ না।চিকি’সা না নিলে ও চলে। কারণ মেয়েরা যখন মা হয় তখন আপনা আপনি আথবা বাচ্চাকে বুকের দুধ খেতে দিলে সমস্যাটির সমাধান হয়।তবে শিশর দুধ পানের সময় এই সমস্যা দূর না হয় তবে শিশু ঠিকমত দুধ টেনে খেতে পারে না।তখন সমস্যাটি প্রকট হয়।মেকানিকাল সাকশন ডিভাইস নামে এক ধরনের যন্ত্র ব্যবহারের মাধ্যমেে এ্ই স্যা থেকে মুক্তি মেলে।এরপরও যদি সমস্যার সমাধান না হয় তবে কসমেটিক সার্জারির মাধ্যমে সমস্যার সমাধান করা হয়।কসমেটিক সার্জারি করলে অনেক সময় স্তনের ডাক্ট ছিড়ে যেতে পারে।

 

আর একটি ব্যাপার কারো যদি পরিণত বয়সে স্তনের বোটা ক্রমশ ভিতরের দিকে যেতে থাকে তাহলে সেটি স্তনের অভ্যন্তরীন জটিল কোন রোগ বলে বিবেচিত হবে।তখন এই সমস্যাটি ডাক্ট এক্টেশিয়া, মাসটাইটিস বা টিউমারের মত কোন রোগ নির্দেশ করে।

মাঝে মাঝে স্তন ক্যান্সার হলে ঐ বয়সেই নতুন করে স্তনের স্বাভাবিক বোটা ভিতরের দিকে ঢুকতে থাকে ।তাই মনে রাখবেন পরিণত বয়সের কোন মেয়ের যদি এই সমস্যা দেখা দেয় তাহলে তাকে অবশ্যই ভাল মানের কোন রেজিস্টার ক্তারের কাছে যেতে হবে ।বিলম্ব করা ঠিক হবে না।মরে রাখবেন সামান্য একটু অলসতাই হতে পারে আপনার জীবনকে মৃত্যুর দিকে ঠেলে দেয়ার পক্ষে যথেষ্ট ।

আর একটা অনুরোধ আমাদের পোষ্ট আপনাদের সামান্যতম উপকারে আসলে পোষ্টটি শেয়ার করবেন।

 

ডায়াবেটিস তাড়াতে ডিম খান,জানলে অবাক হবেন!

উচ্চরক্তচাপ কমানোর কিছু সহজ উপায়,জেনে নিন এক ঝলকে

এই ঘরবন্দি সময়ে খিদে না পাওয়ার কারন কী জানলে অবাক হবেন!

ক্যান্সার এর লক্ষণ বুঝার ১০ টি উপসর্গ,জেনে নিন

জলবসন্তের লক্ষণ ও প্রতিকার জেনে নিন এক ঝলকে

আপনার স্বাস্থ্য বিষয়ক যে কোন সমস্যার জন্য এখানে কমেন্ট করে জানান।তাছাড়া অপনারা কোন ধরণের পোষ্ট চান তাও জানাতে ভুলবেন না।ধন্যবাদ

সুস্থ থাকুন, নিজেকে এবং পরিবারকে ভালোবাসুন। আমাদের লেখা আপনার কেমন লাগছে আপনার যদি কোনো প্রশ্ন থাকে তবে নিচে কমেন্ট করে জানান। আপনার বন্ধুদের কাছে পোস্টটি পৌঁছে দিতে দয়া করে শেয়ার করুন। পুরো পোস্টটি পড়ার জন্য আপনাকে অনেক ধন্যবাদ। প্রতিদিনের আপডেট পেতে আমাদের Facebook লাইক দিয়ে যুক্ত থাকুন।
ধন্যবাদ।

শেয়ার করতে ভুলবেন না

Check Also

এখানে খরচ

এখানে খরচ নাই ওষুধ পাই বিনা মূল্যে

এখানে খরচ নাই,ওষুধ পাই বিনা মূল্যে নরসিংদী সাদত স্মৃতি পল্লী প্রকল্পে যারা ডাক্তার দেখাতে ইচ্ছুক, ...

Leave a Reply

Your email address will not be published.